1. bslbarta@gmail.com : BSL BARTA : Golam Rabbi
তেলঙ্গানা নিয়ে মমতার বিপক্ষে দেব-নুসরাত-মিমি! - বিএসএল বার্তা




তেলঙ্গানা নিয়ে মমতার বিপক্ষে দেব-নুসরাত-মিমি!

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
  • প্রকাশিত সময় : শনিবার, ৭ ডিসেম্বর, ২০১৯
  • ৩৮ বার পড়া হয়েছে
সংগৃহীত ছবি

কেউ পুলিশকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। কেউ বা বলেছেন, আজ উৎসবের দিন। কারও মতে, শান্তি পাবে নির্যাতিতার আত্মা। তেলঙ্গানা ক্রসফায়ারকাণ্ডে ভারতের তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা সম্পূর্ণ উল্টো সুর শোনা গেল তারই দলের সাংসদের একাংশের গলায়। মমতা বিচার ব্যবস্থার উপর আস্থা রাখার কথা বললেও এ নিয়ে পুরোপুরি ভিন্ন মত দেব-নুসরত-মিমির।

শুক্রবার ভোররাতে তেলঙ্গানায় পুলিশি ক্রসফায়ারে নিহত হন গণধর্ষণ ও খুনে অভিযুক্ত চারজন। ঘটনার পরই প্রশংসার পাশাপাশি নিন্দা-সমালোচনার নানা মত দিতে থাকেন অনেকে। এ নিয়ে সরব হন মুখ্যমন্ত্রী মমতাও। এ দিন দুপুরে মেয়ো রোডে একটি সভায় আইনের শাসন তথা বিচার ব্যবস্থার প্রতি আস্থা রাখার কথা বলেন মমতা। তবে ওই সভায় মমতার মন্তব্যের আগে এবং পরেও দেখা যায়, এ বিষয়ে তৃণমূল নেত্রীর সঙ্গে সহমত নন তারই দলীয় সাংসদের একাংশ।

তেলঙ্গানা ক্রসফায়ার প্রসঙ্গে মমতা বলেন, আইন নিজের হাতে তুলে নেয়াটা আইন নয়। আইন এটাই যে পুলিশ তার কাজ করবে। অভিযুক্তদের আদালতে পেশ করবে। বিচারক তার কাজ করবেন। ওই মন্তব্যের পাশাপাশি তেলঙ্গানা গণধর্ষণ ও খুনের ঘটনায় ১০ দিনের মধ্যে চার্জশিট পেশের দাবিও তোলেন তিনি।
মমতার সভার আগে অবশ্য ঘাটাল লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল সাংসদ দেবের গলায় একেবারে অন্য সুর শোনা গেছে। সকাল সাড়ে ১০টা নাগাদ টুইটারে হায়দরাবাদ পুলিশকে অভিনন্দন জানিয়ে তিনি লেখেন, ‘এর প্রয়োজন ছিল।’ এর কিছু ক্ষণ পরেই দেখা যায় নুসরাত জাহানের টুইট। তাতেও দেবের মতের সঙ্গে বেশ মিল খুঁজে পাওয়া যায়।

নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে নিজেকে মানবতাবাদী বলে আখ্যা দিলেও সুবিচারের জন্য আইন নিজের হাতে তুলে নেয়ার পক্ষেই বলেন নুসরত। বসিরহাট কেন্দ্রে সাংসদের টুইট, ‘অবশেষে… সুবিচারের জন্য বিচার/আইন ব্যবস্থার কারুর ব্যাটন তুলে নেয়ার প্রয়োজন রয়েছে। আর্তি শোনা হয়েছে… অপরাধীদের আর অস্তিত্ব নেই।’

দেব বা নুসরাতের মন্তব্য শোনা গিয়েছিল মমতার সভার আগে। তবে ক্রসফায়ার নিয়ে তৃণমূল নেত্রীর মন্তব্যের পরেও মমতার সঙ্গে সহমত হতে দেখা যায়নি যাদবপুর কেন্দ্রের সাংসদ মিমি চক্রবর্তীকে।

তেলঙ্গানা পুলিশকে বাহবা দিয়ে নির্যাতিতার উদ্দেশে মিমির টুইট, এবার তোমার আত্মা শান্তি পাবে। তবে এই মত প্রকাশের আগে মমতার বক্তব্য তার শোনা হয়েছিল কি না, তা অবশ্য জানা যায়নি।

এখানেই থেমে থাকেননি মিমি। এরপর সংবাদ সংস্থা এএনআই-এর একটি ভিডিও রি-টুইট করেছেন তিনি। তাতে দেখা গেছে, ঘটনাস্থলে পুলিশ সদস্যদের ঘিরে জনতার উল্লাস।




নিউজটি শেয়ার করুন...

Comments are closed.

এ জাতীয় আরো খবর..






















© All rights reserved © 2019 bslbarta.com
Customized By BSLBarta Team