বেহাল দশা সীমাবাড়ীর শহীদ মিনারের

247

বগুড়ার শেরপুর উপজেলার সীমাবাড়ী মহিলা কলেজে শহীদ মিনারের বেহাল দশা। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানটির একাডেমিক ভবনসহ অবকাঠামোর ব্যাপক উন্নয়ন হলেও শহীদ মিনারটির প্রয়োজনীয় সংস্কার করা হয়নি। রবিবার আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবসে বেহাল ওই শহীদ মিনারে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের সব কর্মসূচি বাতিল করা হয়েছে।

দিবসটি উপলক্ষ্যে এই শহীদ মিনারটিকে ঘিরে কোনো কর্মসূচি না রাখায় শিক্ষক-শিক্ষার্থী, অভিভাবক, মুক্তিযোদ্ধা ও স্থানীয় সচেতন মহলের মধ্যে তীব্র ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, শহীদ মিনারটির তিনপাশে বাসা-বাড়ির ময়লা-আবর্জনা ও দুর্গন্ধযুক্ত পানি জমে স্থায়ী জলাবদ্ধতা তৈরি হয়ে রয়েছে। আর সামনে করাতকলের (স-মিল) অসংখ্য গাছের গুড়ি ফেলে স্তুপ করে রাখা হয়েছে। ফাটল ধরেছে শহীদ মিনারের পাদদেশে।

কলেজ অধ্যক্ষ সাবিনা ইয়াসমিন বলেন, দীর্ঘদিন থেকেই প্রয়োজনীয় সংস্কারের অভাবে শহীদ মিনারটি বেহাল। বিষয়টি বিভিন্ন দপ্তরে লিখিতভাবে জানিয়েছি। জরুরি ভিত্তিতে সংস্কার প্রয়োজন। প্রয়োজনীয় অর্থের অভাবে শহীদ মিনারটির সংস্কারসহ পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করা সম্ভব হয়নি। তাই এবারের মাতৃভাষা ও শহীদ দিবসে এই শহীদ মিনারটিকে ঘিরে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন কোনো কর্মসূচি নেওয়া হয়নি বলে জানান তিনি।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা লিয়াকত আলী সেখ বলেন, বেহাল ওই শহীদ মিনারটির অবস্থা সম্পর্কে জানা নেই। তাই খোঁজ খবর নিয়ে শহীদ মিনারটি সংস্কারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সূত্র: কালের কণ্ঠ